প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি, নৌকায় ভোট চাইলেন - Amader Prokawshal
শনিবার, ৪ঠা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, রাত ২:৫৯

শিরোনামঃ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি, নৌকায় ভোট চাইলেন

আগামী দিনে আরও উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিয়ে নৌকায় ভোট চাইলেন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, দেশের অনেক উন্নয়ন করেছি, আপনারা সুযোগ দিলে আগামী দিনে আরও উন্নয়ন করবো। আপনারা নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আমাদের সেবা করার সুযোগ দিয়েছেন। আগামীতে নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে আপনাদের সেবা করার সুযোগ দেবেন কি না ওয়াদা চাই। আপনারা হাত তুলে ওয়াদা করেন।

 

বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) বিকেলে যশোর শামস উল হুদা স্টেডিয়ামে আওয়ামী লীগের জনসভায় দেওয়া ভাষণে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর আগমনে স্টেডিয়াম জনসমুদ্রে পরিণত হয়।

রিজার্ভ নিয়ে সমালোচনার জবাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘রিজার্ভ নিয়ে অনেকে নানা সমালোচনা করছেন। অনেকে প্রশ্ন করেন রিজার্ভ গেলো কোথায়? আমরা তো রিজার্ভ অপচয় করিনি। মানুষের কল্যাণে কাজে লাগিয়েছি। জ্বালানি তেল কিনতে হয়েছে, খাদ্যশস্য কিনেছি। বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করেছি। করোনার টিকা ও চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করেছি। এসব কাজে রিজার্ভ থেকে খরচ করতে হয়েছে আমাদের। কারণ আমরা সবসময় মানুষের কথা চিন্তা করে উন্নয়ন কর্মকাণ্ড চালাচ্ছি।’

আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, ‘আমাদের সরকার রিজার্ভ রেকর্ড পরিমাণ বাড়িয়েছে। আর কোনো সরকার রিজার্ভ বাড়াতে পারেনি। পর্যাপ্ত রিজার্ভ হাতে রেখেই সব কাজ করছি আমরা। রিজার্ভের কোনো সমস্যা নেই। আমাদের সব ব্যাংকে পর্যাপ্ত টাকা আছে। সামনের দিনেও কোনো সমস্যা হবে না।’

কোনো মানুষ ভূমিহীন থাকবে না, ঠিকানাহীন থাকবে না উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমি যখন ১৯৯৬ সালে ক্ষমতায় আসি, তখন থেকে সিদ্ধান্ত নিই একটি মানুষও ভূমিহীন থাকবে না। এবার আমরা ক্ষমতায় এসে ভূমিহীনদের ঘর তৈরি করে দিয়েছি। ৩৫ লাখ মানুষকে ঘর নির্মাণ করে দিয়েছি। ঘর পেয়ে মানুষের জীবন পাল্টে গেছে। জাতির পিতার আকাঙ্ক্ষা পূরণ করেছি।’

যশোরে জনসভা করতে পেরে আনন্দিত উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এই যশোরে আমার নাড়ির টান আছে। এখানকার মাটিতে আমার নানা শেখ জহুরুল হক শুয়ে আছেন। তিনি যশোরে চাকরি করতেন। আমার মায়ের বয়স যখন তিন বছর তখন তিনি মারা যান। ওই সময় যোগাযোগ ব্যবস্থা এতই খারাপ ছিল যে লাশ টুঙ্গিপাড়ায় নিয়ে যাওয়া যায়নি। তাই আমার নানাকে এখানে দাফন করা হয়েছে। এখানে আমার নানার স্মরণে দারিদ্র্য বিমোচন ট্রেনিং সেন্টার হচ্ছে।’

jagonews24

মানুষের মুখের গ্রাস কেড়ে নিয়ে বিএনপি নিজেদের উন্নয়ন করেছে উল্লেখ করে আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, ‘রক্ত আর হত্যা ছাড়া বিএনপি কিছু দিতে পারেনি। তারা (বিএনপি) কিছুই দিতে পারে না, শুধু পারে মানুষের রক্ত চুষে খেতে। এটাই হচ্ছে বাস্তবতা।’

তিনি বলেন, ‘বিচার পাওয়ার অধিকার আমার ছিল না। বাবা-মা-ভাই-বোন সবাইকে হারিয়েছি। তারপরও এ বাংলায় ফিরে এসেছি। বাংলার মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠা করাই ছিল আমার লক্ষ্য।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, পঁচাত্তরের ১৫ আগস্টের পর জয় বাংলা স্লোগান নিষিদ্ধ ছিল। একের পর এক ক্যু (অভ্যুত্থান) হয়েছে। এর সঙ্গে জিয়া-মোশতাক সবাই জড়িত। জিয়া-মোশতাক সবাই খুনি। আমি বিচার চাইতে পারিনি। তারপরও সবকিছু মাথায় নিয়ে ফিরে এসেছি একটাই কারণে, এই জাতির পিতা, আমার পিতা সারাজীবন সংগ্রাম করেছেন। সেজন্য আমার লক্ষ্য ছিল, এই দেশের মানুষের জন্য কিছু করা। বারবার ক্ষমতায় এসেছি বলেই উন্নয়ন করা সম্ভব হয়েছে।

আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে কমিউনিটি ক্লিনিক করেছে। বিনা পয়সায় ৩০ ধরনের ওষুধ পাওয়া যায়। আমরা ডিজিটাল বাংলাদেশ করে দিয়েছি। বিএনপি দিয়েছে অস্ত্র, খুন, হত্যা। শুধু হত্যা আর খুন ছাড়া কিছু দিতে পারেনি বিএনপি। মানুষের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলেছে। জিয়া যখন মারা যান, কিছু রেখে যাননি। ভাঙা বাক্স আর ছেঁড়া গেঞ্জি ছাড়া।’

তিনি আরও বলেন, ‘তারেক রহমান সাজাপ্রাপ্ত আসামি। দেশের টাকা বিদেশে পাচার করেছে। সেজন্য তার সাজা হয়েছে। অস্ত্র চোরাকারবারি করতে গিয়ে দশ ট্রাক অস্ত্রসহ ধরা খেয়েছে, সেখানেও তার সাজা হয়েছে। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা করে আমিসহ নেতাকর্মীদের হত্যা করতে চেয়েছে। আর খালেদা জিয়া এতিমের টাকা মেরে আজ সাজাপ্রাপ্ত। আর সাজাপ্রাপ্ত নেতা জনগণকে কী দেবে? তারা কিছুই দিতে পারে না, শুধু রক্ত চুষে খেতে পারে।’

সরকারপ্রধান বলেন, ‘যশোরে বিএনপি উন্নয়নের কিছুই করেনি। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে করেছে। পঁচাত্তরের পর এদেশে আর কোনো উন্নয়ন হয়নি। আওয়ামী লীগ মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছে। পদ্মা সেতু থেকে যেন যশোর আসতে পারে সেই রেললাইনের কাজ চলছে।’ নির্বাচনে যশোরের সবকটি আসন থেকে নির্বাচিত করায় যশোরের মানুষের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, দেশে বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল হবে। সেখানে যুবকদের অনেক কর্মসংস্থান হবে। যুবকদের নিজের পায়ে দাঁড়াতে হবে। কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করেছি। সেখান থেকে বিনা জামানতে তিন লাখ টাকা ঋণ পাওয়া যায়। এটা নিয়ে নিজেরাই ব্যবসা করতে পারবে। এখনকার যুগে কেউ বেকার থাকবে না। কিছু না কিছু করতে পারবে। সেই সুযোগটা আওয়ামী লীগ সরকার করে দিয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কোনো দেশ করোনা ভ্যাকসিন বিনা পয়সায় দেয়নি। আমি দিয়েছি। এই করোনা মোকাবিলার জন্য বিশেষ বিমান পাঠিয়ে কোটি কোটি টাকা খরচ করে সামগ্রী এনেছি। রিজার্ভ মানুষের কাজে লেগেছে। যে গম ২০০ ডলারে কিনতাম, তা এখন ৬০০ ডলার। যুদ্ধ আর নিষেধাজ্ঞার কারণে। তারপরও আমরা কিনে এনেছি, যাতে খাদ্য ঘাটতি না দেখা দেয়। এজন্য আমি জমি অনাবাদি না রেখে উৎপাদন করার কথা বলেছি।’

সরকারপ্রধান বলেন, যশোরে ভবদহ জলাবদ্ধতা দূর করার প্রকল্প শেষ হয়েছে। এবার আমরা দ্বিতীয় প্রকল্প হাতে নিয়েছি। ফলে যশোর, খুলনা, সাতক্ষীরার জলাবদ্ধতা দূর হবে। ৮২ কিলোমিটার নদীর নাব্য ফিরিয়ে আনতে কাজ হাতে নিয়েছি। কপোতাক্ষের মতো ভবদহে জলাবদ্ধতা যেন না থাকে, সে বিষয়েও আমরা পদক্ষেপ নেবো।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যশোর বিমান ঘাঁটিতে বিমানবাহিনীর একটি অনুষ্ঠানে ভাষণ দেন। এরপর দুপুর ২টা ৩৮ মিনিটে যশোর শামস-উল হুদা স্টেডিয়ামে জনসভা মঞ্চে আসেন। মঞ্চে উঠে তিনি হাত নেড়ে নেতাকর্মীদের শুভেচ্ছা জানান। এ সময় নেতাকর্মীরা স্লোগানে স্লোগানে গোটা এলাকা মুখরিত করে তোলেন।

jagonews24

বিকেল ৩টা ১৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা লাখো জনতার উদ্দেশে ভাষণ দেন। ৩৫ মিনিটের ভাষণে তিনি দেশের নানা উন্নয়ন চিত্র, অতীত ও বর্তমান পরিস্থিতি তুলে ধরেন।

এর আগে দুপুর ১২টা ২২ মিনিটে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলনের সভাপতিত্বে সমাবেশ শুরু হয়। এতে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতারা।

যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার এমপির পরিচালনায় জনসভায় বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বাগেরহাট-১ (চিতলমারী, মোল্লাহাট, ফকিরহাট) আসনের সংসদ সদস্য শেখ হেলাল উদ্দিন, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ড. আবদুর রাজ্জাক, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, মির্জা আজম, এসএম কামাল হোসেন, সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, সামছুন্নাহার চাপা, কার্যনির্বাহী সদস্য ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, আনোয়ার হোসেন, সাহাবুদ্দিন ফরাজী, ইকবাল হোসেন অপু, আনিসুর রহমান, মেরিনা জাহান কবিতা ও পারভিন জামান কল্পনা।

আইইবি ও আইডিইব ‘র তথ্য: ৯ মাসে ৮২ প্রকৌশলী লাঞ্ছিত

সংবিধান অনুযায়ী দায়িত্ব পালনে সচেষ্ট বিচার বিভাগ

দেশে গুম-খুনের সংস্কৃতি চালু করেছিল জিয়াউর রহমান : শেখ হাসিনা

উন্নয়ন কাজে প্রকৌশলী ও ঠিকাদারদের দ্বন্দ, বাড়ছে হামলা-মামলার ঘটনা

এডিপির ৪০ প্রকল্পে লুটপাটের অভিযোগ

দুর্নীতিতে এগিয়ে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর

সোশ্যাল মিডিয়ায় আওয়ামী লীগ বিরোধী অপপ্রচারের যথাযথ জবাব দিতে হবে : ছাত্রলীগকে প্রধানমন্ত্রী

১০ ডিসেম্বর জাতির উদ্দেশে নতুন কর্মসূচি ঘোষণা দেওয়া হবে: মির্জা ফখরুল

আশা করছি, বিরোধী দল শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ করবে, বললেন ওবায়দুল কাদের

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি, নৌকায় ভোট চাইলেন

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশের অনুমতি চায়নি বিএনপি

বিএনপিকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হবে

মোকাম সিপিজি এবং বিলিভ ইন্টারন্যাশনাল -এর মাঝে জাতীয় ডিস্ট্রিবিউটরশিপ চুক্তি স্বাক্ষর

সরকারি কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমণ স্থগিত

আইএমএফের প্রথম কিস্তি আসবে ফেব্রুয়ারিতে : অর্থমন্ত্রী

জাতীয় শ্রমিক লীগের ৫৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

জনস্বাস্থ্যের প্রধান প্রকৌশলী সাইফুর রহমানের বিরুদ্ধে মানবন্ধন

১২১৭২ দিন পর….

এক নজরে ইলেকট্রিসিটি জেনারেশন কোম্পানি অব বাংলাদেশ

আলোর বাতিঘর আশুগঞ্জ পাওয়ার স্টেশন

চাদঁপুরের হাইমচরে চেয়ারম্যান কর্তৃক জেলেদের চাল পাচারকালে চালসহ আটক ১

রাজধানী ডেমরার হাজী বাদশা মিয়া রোডে সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজ মনিরের উৎপাতে অতিষ্ট এলাকাবাসী

গ্রাহকের টাকা নিয়ে নয়-ছয় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ই-অরেঞ্জের

প্রবাসীদের অর্থায়নে ঈদ উপহার বিতরণ

সেহরির সময় হলেই খাবারের ব্যাগ হাতে যুব অধিকার পরিষদ।

ডেমরায় সন্ত্রাসী কায়দায় বাড়িতে হামলা ও দোকান লুটপাটঃ গ্রেফতার ৩

ঢাকা-০৫ আসনে একাধিক প্রার্থীঃআলোচনার শীর্ষে নেহরীন মোস্থফা দিশি

আগে পণ্য পরে টাকা: স্বাগত জানাল কিউকম

ডেমরায় মাইক্রোবাসের ধাক্কায় অজ্ঞাতনামা অটোরিকশা চালক নিহত

ডেমরায় হেলথ কেয়ার হসপিটালে র‍্যাবের অভিযান

ডেমরায় হত্যাচেষ্টা মামলার মূল নায়ক প্রেমিক ফাহাদকে ধরতে তৎপর প্রশাসন,মিলছে না খোঁজ

নিউজিল্যান্ড সফরে বাংলাদেশ দলের স্পন্সর ‘ইভ্যালি’

দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন ডেমরা থানার তদন্ত অফিসার রফিকুল ইসলাম

নূর নবীকে ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার হিসাবে দেখতে চায় এলাকাবাসী

দীর্ঘ দেড় যুগ পর চাঁদপুরের হাইমচর উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা

ডিএসসিসির ৬৪,৬৫ ও ৬৬ নং ওয়ার্ডের নারী কাউন্সিলরের টেন্ডার বানিজ্য,ভোগান্তির শিকার এলাকাবাসী

দেড় যুগ পর অবশেষে ডেমরা থানা ছাত্রলীগের প্রতিটি ওয়ার্ডের সফল কমিটি ঘোষিত

বরপা পিজিওন ক্লাবের পূর্নমিলণী ও সভা অনুষ্ঠিত

বিজয়ের বর্ণিল সাজে সেজেছে কবি নজরুল কলেজে

ছেলে ও ছেলের প্রেমিকাকে হত্যা করল বাবা!


উপরে

Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial